মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
পর্যটনকেন্দ্রের হাতছানি : রাজাপুরের ধানসিঁড়ি খননের উর্বর পলিমাটিতে সবুজের সমারোহ সুন্দরবনে গোলপাতার কদর আগের মতো নাই কেউ কাটতে যেতে চায় না শত বছরের ঐতিহ্য ভেঙ্গে আমতলীর নারী শ্রমিকরা কাজ করছেন বোরো ধান ক্ষেতে খুলনা প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত নেতৃবৃন্দকে ফটোজার্নালিস্ট এ্যাসোসিয়েশনের শুভেচ্ছা ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি’র সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত গাবতলী ধানের শীষের পক্ষে ভোট চেয়ে গনসংযোগ করেন ছাত্রদল নেতা পলাশ গলাচিপায় এমপি শাহজাদা ও উপজেলা চেয়ারম্যান সাহিনকে সংবর্ধনা ষষ্ঠ রাউন্ডে গোয়ালন্দ দাবা ক্লাব ও পুলিশ স্টারের জয় লাখ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে এসআই আলমগীরের নামে মামলা বস্তিবাসী শিক্ষার্থীদের শিক্ষা জীবন ফিরিয়ে দিতে হবে

মান্দায় স্ত্রীর স্বীকৃতি না পেয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

এম এম হারুন আল রশীদ হীরা, মান্দা প্রতিনিধি (নওগাঁ) :
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৪১ বার পঠিত

নওগাঁর মান্দায় স্ত্রীর স্বীকৃতি না পাওয়ায় অবশেষে রাগে-ক্ষোভে অপমানে নুরুন্নাহার (১৫) নামের ১০ম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছেন। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে একটানা ১০ দিন চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় অবশেষে মৃত্যুর কাছে হেরে যান এ শিক্ষার্থী। ময়নাতদন্ত শেষে বুধবার বিকেলে পারিবারিক কবরস্থানে তার লাশ দাফন সম্পূর্ন করা হয়।

শিক্ষার্থী নুরুন্নাহার নওগাঁর মান্দা উপজেলার কাঁশোপাড়া ইউনিয়নের কাঁশোপাড়া গ্রামের সামছুর রহমানের মেয়ে ও কাঁশোপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী।

স্থানীয়রা জানান, মান্দা উপজেলার কাঁশোপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের তথ্যসেবা কেন্দ্রের উদ্যোক্তা মকলেছুর রহমান প্রেমের ফাঁদে ফেলে শিক্ষার্থী নুরুন্নাহারকে গোপনে বিয়ে করেন। কিন্তু ১৮ বছর পূর্ণ না হওয়ায় গোপন বিয়ের কাবিনানামা করা হয়নি। এরপর থেকে বিভিন্ন সময় তার সঙ্গে দৈহিক সম্পর্কে লিপ্ত হতেন মকলেছুর রহমান।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এলাকার একাধিক ব্যক্তি জানান, বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হবার পর মকলেছুর রহমানের প্রথম স্ত্রী জুলেখা খাতুন মুক্তি হারপিক পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। সে সময় তাকে উদ্ধার করে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে কয়েকদিনের চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরেন মুক্তি।

এদিকে শিক্ষার্থী নুরুন্নাহার স্বামীর স্বীকৃতি সহ বাড়িতে তুলে নেওয়ার জন্য চাপ দিতে থাকলে বিভিন্ন অজুহাতে মকলেছুর রহমান এড়িয়ে যেতে থাকেন। এনিয়ে উভয়ের মধ্যে সম্পর্কের চরম অবনতি ঘটার এক পর্যায়ে গোপন বিয়ের বিষয়টি সম্পূর্ণ অস্বীকার করেন মকলেছুর। এর জের ধরে গত ৬ ডিসেম্বর সকালে মোবাইলফোনে উভয়ের মধ্যে বাকবিতন্ডা হলে হারপিক পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন শিক্ষার্থী নুরুন্নাহার। হারপিক পানের ঘটনাটি জানার সাথে সাথে তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

নুরুন্নাহারের ভাই আব্দুল মালেক জানান, রামেক হাসপাতালে নেওয়ার পর গত ১০ ডিসেম্বর নুরুন্নাহারের অপারেশন করা হয়। এরপর লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছিল তাকে। এ অবস্থায় বুধবার (১৬ ডিসেম্বর) ভোর ৫টার দিকে মারা যান বোন নুরুন্নাহার।

এদিকে ঘটনার পর থেকে গা ঢাকা দিয়েছেন কথিত স্বামী মকলেছুর রহমান। তার পরিবারের লোকজনও বিষয়টি এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছেন। মকলেছুরের মা মাকসুদা বিবি জানান, ‘ছেলে মকলেছুর প্রেম করে নুরুন্নাহারকে গোপনে বিয়ে করেছেন গ্রামবাসির মুখে এমন কথা শুনেছি। এর বেশি আর কিছুই আমি জানি না।

মান্দা থানার ওসি শাহিনুর রহমান জানান, ঘটনায় ভিকটিম শিক্ষার্থীর বাবা সামছুর রহমান বাদি হয়ে মকলেছুর রহমানের বিরুদ্ধে আত্মহত্যা প্ররোচনার একটি মামলা দায়ের করেছেন এবং আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান ।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

এ জাতীয় আরো খবর..

cover3.jpg”><img src=”https://www.bssnews.net/wp-content/uploads/2020/01/Mujib-100-1.jpg”>

via Imgflip

 

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি  © All rights reserved © 2011 Gnewsbd24
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazargewsbd451