1. gnewsbd24@gmail.com : admi2019 :
বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ১১:১১ অপরাহ্ন

লালমোহনে করোনা উপসর্গ নিয়ে এক ব্যক্তির মৃত্যু : ৩ গ্রাম লকডাউন

এম. শরীফ হোসাইন, ভোলা প্রতিনিধি :
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ১১ এপ্রিল, ২০২০
  • ৪০ বার পঠিত

ভোলার লালমোহন উপজেলায় করোনা উপসর্গ নিয়ে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। তার নাম আবু কালাম সরদার (৫৫)।তথ্য গোপন করে মরদেহ দাফনের চেষ্টাকালে শুক্রবার রাত ১১টার দিকে উপজেলার কাশ্মির গ্রাম, নর্থ গজারিয়া গুচ্ছগ্রাম ও পার্শ্ববর্তী ফরাজগঞ্জ ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড লকডাউন ঘোষণা করে প্রশাসন। এরআগে দুপুরে ভোলা নেয়ার পথে পশ্চিম চরউমেদ ইউনিয়নের উত্তর গজারিয়া আবাসন এলাকায় জ্বর, পাতলা পায়খানা ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয়।

ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচির (সিপিপি) সহকারী পরিচালক মূন্সী নূর মোহাম্মদ জানান, জ্বর, পাতলা পায়খানা ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে দুপুরে আবু কালাম সরদারের মৃত্যু হয়। এরপর তথ্য গোপন করে মরদেহ রাত ১১টার দিকে দাফন করার সময় বিষয়টি টেরপান স্থানীয়রা।

পরে প্রসাশনকে খবর দেন তারা। এর পর কাশ্মির গ্রাম, নর্থ গজারিয়া গুচ্ছগ্রাম ও পার্শ্ববর্তী ফরাজগঞ্জ ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাবিবুল হাসান রুমির নির্দেশে আগামী ১৪ দিনের জন্য লকডাউন ঘোষণা করা হয়।

তিনি জানান, গোপন সূত্রে খবর পেয়ে আমরা ওই আবাসনে যাই। গিয়ে এ অবস্থা দেখতে পাই। আবু কালাম সরদারের বড় ছেলের বউ প্রায় এক সপ্তাহ আগে ঢাকা থেকে বাড়িতে ফেরেন। তিনি ফরাজগঞ্জের ৯নং ওয়ার্ডে দুইদিন থাকেন। আবু কালাম সরদার মারা গেলে তার মরদেহ কাশ্মিও গ্রামে দাফনের জন্য নেয়। এ কারণে এসব এলাকা লকডাউন করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে লালমোহন হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মো.মহসিন খান বলেন, ওই রোগীর খবর পেয়ে তার বাড়িতে গেলে প্রথমে তার স্বজনরা ঘটনা অস্বীকার করেন। কিছুক্ষণ পর তারা ওই রোগীকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন। সন্দেহ হলে তার নমুনা সংগ্রহ করি। পওে তা সিভিল সার্জন অফিসের মাধ্যমে ঢাকায় পাঠানো হয়। রিপোর্ট পেলে বোঝা যাবে তিনি করোনা আক্রান্ত কিনা?

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

এ জাতীয় আরো খবর..

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি  © All rights reserved © 2011 Gnewsbd24
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazargewsbd451