ঢাকা ০৫:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ০২ এপ্রিল ২০২৩, ১৮ চৈত্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

দরিদ্র ভ্যান চালেকের কলা গাছ কেটে দিয়েছে শত্রুতার জেরে

মাগুরার শ্রীপুরে পূর্ব শত্রুতার জেরে ধরন্ত কলাগাছ কেটে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা। গত সোমবার রাতের আধারে উপজেলার দ্বারিয়াপুর ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রামের ওহাব মণ্ডল নামে এক ভ্যানচালকের কলা বাগানের ধরন্ত ২’শ টি কলাগাছ কেঁটে দিয়েছে। এ ঘটনায় ওহাব মণ্ডল বাদী হয়ে শ্রীপুর থানায় প্রতিবেশী সাদ্দাম ফকির ও আনারুল ফকির নামে ২ জনের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার বিকেলে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। নেক্কারজনক এ ঘটনায় এলাকাবাসী তীব্র নিন্দা এবং দোষীদের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী ওহাব মণ্ডল বলেন, ৩৮ শতাংশ জমির ২’শ টি ধরন্ত কলাগাছ ধারালো অস্ত্র দিয়ে কেটে দিয়েছে সাদ্দাম ফকির ও আনারুল ফকির। তাদের সাথে তার পূর্ব শত্রুতা রয়েছে। এ শত্রুতার জেরেই তারা কলাগাছ কেটে দিয়েছে।

সবগলো গাছের মূল অংশ কেটে ফেলেছে। একটা গাছও বাঁচবে না। এ ঘটনার পর কলাবাগান থেকে বাড়িতে আসার সময় তারা তাকে দেখে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। এবং এ বিষয়ে কোন কিছু করলে তাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। এ ঘটনার সঠিক বিচার চায় সে।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত সাদ্দাম ফকির বলেন, নিজের একটি চা এবং মুদিখানার দোকান আছে। ওইদিন রাতে যে সময়টায় কলাগাছ কাটার কথা বলেছেন সে সময়টা সে দোকানে ছিল। তাদের কলাগাছ সে কাটিনি বলে জজান।তাকে পারিবারিক ঝগড়ার জেরে অভিযুক্ত করা হচ্ছে বলে সে জানায়।

শ্রীপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাব্বারুল ইসলাম জানান, এ বিষয়ে শুনেছি। ঘটনাস্থলে পুলিশ ও গিয়েছিল। লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

দরিদ্র ভ্যান চালেকের কলা গাছ কেটে দিয়েছে শত্রুতার জেরে

আপডেট সময় : ০৮:৫৭:১৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২৩

মাগুরার শ্রীপুরে পূর্ব শত্রুতার জেরে ধরন্ত কলাগাছ কেটে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা। গত সোমবার রাতের আধারে উপজেলার দ্বারিয়াপুর ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রামের ওহাব মণ্ডল নামে এক ভ্যানচালকের কলা বাগানের ধরন্ত ২’শ টি কলাগাছ কেঁটে দিয়েছে। এ ঘটনায় ওহাব মণ্ডল বাদী হয়ে শ্রীপুর থানায় প্রতিবেশী সাদ্দাম ফকির ও আনারুল ফকির নামে ২ জনের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার বিকেলে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। নেক্কারজনক এ ঘটনায় এলাকাবাসী তীব্র নিন্দা এবং দোষীদের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী ওহাব মণ্ডল বলেন, ৩৮ শতাংশ জমির ২’শ টি ধরন্ত কলাগাছ ধারালো অস্ত্র দিয়ে কেটে দিয়েছে সাদ্দাম ফকির ও আনারুল ফকির। তাদের সাথে তার পূর্ব শত্রুতা রয়েছে। এ শত্রুতার জেরেই তারা কলাগাছ কেটে দিয়েছে।

সবগলো গাছের মূল অংশ কেটে ফেলেছে। একটা গাছও বাঁচবে না। এ ঘটনার পর কলাবাগান থেকে বাড়িতে আসার সময় তারা তাকে দেখে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। এবং এ বিষয়ে কোন কিছু করলে তাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। এ ঘটনার সঠিক বিচার চায় সে।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত সাদ্দাম ফকির বলেন, নিজের একটি চা এবং মুদিখানার দোকান আছে। ওইদিন রাতে যে সময়টায় কলাগাছ কাটার কথা বলেছেন সে সময়টা সে দোকানে ছিল। তাদের কলাগাছ সে কাটিনি বলে জজান।তাকে পারিবারিক ঝগড়ার জেরে অভিযুক্ত করা হচ্ছে বলে সে জানায়।

শ্রীপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাব্বারুল ইসলাম জানান, এ বিষয়ে শুনেছি। ঘটনাস্থলে পুলিশ ও গিয়েছিল। লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।