ঢাকা ০১:৪৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মার্চ ২০২৩, ৯ চৈত্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বীরগঞ্জের ১৭৬২ আদিবাসী জনগোষ্ঠী খাদ্য সহায়তা পেল

করোনা ভাইরাস কোভিড-১৯ দুর্যোগের এই সময়ে দিনাজপুরের বীরগঞ্জের ১৭৬২ আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মাঝে খাদ্য সহায়তা দেয়া হয়েছে।
গতকাল শুক্রবার বীরগঞ্জ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আদিবাসী জনগোষ্ঠীর খাদ্য সহায়তা কার্যক্রম উদ্বোধন করেন স্থানীয় এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে বীরগঞ্জ-কাহারোলের অসহায় ও দুস্থদের সবসময় খোজ খবর নিচ্ছেন এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল। এসময় তিনি এক গ্রাম থেকে আরেক গ্রাম ছুটে বেড়াচ্ছেন এবং সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বাড়ী বাড়ী গিয়ে অসহায়দের খাদ্য সামগ্রীও পৌছে দিচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রীর দেয়া খাদ্য সামগ্রী নিয়ে কেউ যাতে আত্মীয়করণ করতে না পারে সেদিকে নজর রাখছেন তিনি।

গতকাল শুক্রবার বীরগঞ্জ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে গ্রাম বিকাশ কেন্দ্র, ইউএনডিপি ও হেকস্ ইপার এর সহায়তায় বীরগঞ্জের ১৭শ ৬২ আদিবাসী পরিবারের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হয়। এতে প্রত্যেক পরিবারকে ১০ কেজি চাল, ৪ কেজি আটা, ২ কেজি মসুর ডাল, ১ কেজি চিনি, ১ কেজি লবন, ১ লিটার সোয়াবিন তেল, ১ কেজি চিড়া, ৫শ গ্রাম সুজি ও ২টি লাইফবয় সাবান দেয়া হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন কাহারোল উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ইয়ামিন হোসেন, গ্রাম বিকাশ কেন্দ্রের নির্বাহী উপ পরিচালক মো. আমিনুল ইসলাম, পরিচালক সারা মারান্ডী, হেকস্ ইপার এর প্রতিনিধি ভূপেষ রায়, আলো প্রকল্প ব্যবস্থাপক নুরে আলম সিদ্দীকি, বীরগঞ্জ ওসি আব্দুল মতিন প্রধান, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শামীম ফিরোজ আলম, প্রমুখ।

ট্যাগস :

আপনার মন্তব্য

আপলোডকারীর তথ্য

বীরগঞ্জের ১৭৬২ আদিবাসী জনগোষ্ঠী খাদ্য সহায়তা পেল

আপডেট সময় : ০৬:১৫:৪৫ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুন ২০২০

করোনা ভাইরাস কোভিড-১৯ দুর্যোগের এই সময়ে দিনাজপুরের বীরগঞ্জের ১৭৬২ আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মাঝে খাদ্য সহায়তা দেয়া হয়েছে।
গতকাল শুক্রবার বীরগঞ্জ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আদিবাসী জনগোষ্ঠীর খাদ্য সহায়তা কার্যক্রম উদ্বোধন করেন স্থানীয় এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে বীরগঞ্জ-কাহারোলের অসহায় ও দুস্থদের সবসময় খোজ খবর নিচ্ছেন এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল। এসময় তিনি এক গ্রাম থেকে আরেক গ্রাম ছুটে বেড়াচ্ছেন এবং সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বাড়ী বাড়ী গিয়ে অসহায়দের খাদ্য সামগ্রীও পৌছে দিচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রীর দেয়া খাদ্য সামগ্রী নিয়ে কেউ যাতে আত্মীয়করণ করতে না পারে সেদিকে নজর রাখছেন তিনি।

গতকাল শুক্রবার বীরগঞ্জ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে গ্রাম বিকাশ কেন্দ্র, ইউএনডিপি ও হেকস্ ইপার এর সহায়তায় বীরগঞ্জের ১৭শ ৬২ আদিবাসী পরিবারের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হয়। এতে প্রত্যেক পরিবারকে ১০ কেজি চাল, ৪ কেজি আটা, ২ কেজি মসুর ডাল, ১ কেজি চিনি, ১ কেজি লবন, ১ লিটার সোয়াবিন তেল, ১ কেজি চিড়া, ৫শ গ্রাম সুজি ও ২টি লাইফবয় সাবান দেয়া হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন কাহারোল উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ইয়ামিন হোসেন, গ্রাম বিকাশ কেন্দ্রের নির্বাহী উপ পরিচালক মো. আমিনুল ইসলাম, পরিচালক সারা মারান্ডী, হেকস্ ইপার এর প্রতিনিধি ভূপেষ রায়, আলো প্রকল্প ব্যবস্থাপক নুরে আলম সিদ্দীকি, বীরগঞ্জ ওসি আব্দুল মতিন প্রধান, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শামীম ফিরোজ আলম, প্রমুখ।