সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০১:৩১ পূর্বাহ্ন

মোংলা বন্দর ও সুন্দরবনের নদ-নদীর পানি বেড়েছে, বন্দরের কার্যক্রম ব্যাহত

গাজী যুবায়ের আলম, ব্যুরো প্রধান, খুলনা ঃ
  • Update Time : রবিবার, ২৩ আগস্ট, ২০২০

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপের প্রভাবে মোংলা বন্দরসহ সুন্দরবন উপকূলে থেমে থেমে হালকা ও মাঝারি বৃষ্টিপাতসহ ঝড়ো হাওয়া অব্যাহত রয়েছে। এ কারনে বন্দরে অবস্থানরত বাণিজ্যিক জাহাজ সমূহের স্বাভাবিক কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে। বিরাজ করছে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া। এদিকে মোংলা বন্দরের পশুর ও সুন্দরবনের নদ-নদীর পানি স্বাভাবিকের চেয়ে ৩ ফুট বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানিয়েছে বনবিভাগ। রাত ও দিনের দু’দফার জোয়ারের পানিতে সুন্দরবনের করমজল বন্যপ্রাণি প্রজনন কেন্দ্রসহ প¬াবিত হয়েছে বনাঞ্চলের নিম্নাঞ্চল। ফলে বাঘ-হরিণসহ বন্যপ্রাণিরা গভীর বনের উঁচু স্থানে অবস্থান করতে দেখা গেছে বলেও জানায় বনকর্মীরা।

সুন্দরবনের করমজল বন্যপ্রাণি প্রজনন কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আজাদ কবির জানান, বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে শনিবার দুপুর পর্যন্ত ভরাকাঠালের প্রভাবে জোয়ারের পানি বৃদ্ধির ঘটনা বিরল। গত ২০ বছরের মধ্যে সুন্দরবনের নদী ও খালে জোয়ারের পানি বৃদ্ধির রেকর্ড ভেঙেছে। নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় প্রজনন কেন্দ্রের কুমির, হরিণ, কচ্ছপও বানরসহ সকল প্রাণিকে ভেড়ীগেট দিয়ে নিরাপদে রাখা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, জোয়ার-ভাটার ওপর নির্ভর করেই টিকে আছে সুন্দরবনের জীববৈচিত্র্য ও প্রাণিকুল। তাই জোয়ারের প¬াবন ও বনের অভ্যন্তরের পানি বেড়ে যাওয়ায় প্রাণিকুলের বিশুদ্ধ খাবার পানির সংকট দেখা দিতে পারে। তবে নদীর পানি এখনও মিষ্টি থাকায় বনের অভ্যন্তরে পুকুরগুলোতে তেমন সমস্যা হওয়ার সম্ভাবনা কম। তবে বন্যপ্রাণির ক্ষয়ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা না থাকলেও নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ার জন্য সার্বিক বিষয় নজরদারী ও শঙ্কায় রয়েছে তারা।

এদিকে, উপজেলার কানাইনগর এলাকায় ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ভেঙে যাওয়া ভেড়ীবাঁধ সংস্কার করে পানি উন্নয়ন বোর্ড। মাত্র এক মাসের ব্যবধানে নির্মাণ করা নতুন ভেড়ীবাঁধ পুনরায় ভেঙে প¬াবিত হয়ে যায় পুরো এলাকা। পানি উঠে তলিয়ে যায় ঘর-বাড়ি ও পুকুরসহ অনেক স্থাপনা। সেখানকার মানুষের অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে, ভেসে গেছে পুকুরে থাকা মাছ ও ঘরের আসবাব পত্র ও মূল্যবান মালামাল। অপর দিকে দেশের উত্তর পশ্চিমাঞ্চল বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে লঘুচাপটি।

এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগরে মৌসুমী বায়ু সক্রিয় রয়েছে। এ কারনে বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশ উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্র বন্দর সমূহের উপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার অভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। একই সঙ্গে সমুদ্র বন্দর সমুহকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত বহাল রাখা হয়েছে। সমুদ্র উত্তাল থাকায় তীরে ফিরছে সমুদ্রগামী জেলেরা। এ কারনে উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত নৌকা ও ট্রলার সমূহকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি সাবধানে চলাচল করতে বলেছে আবহাওয়া অফিস।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

Leave a Reply

More News Of This Category
<script async src="https://pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js?client=ca-pub-3423136311593782"
     crossorigin="anonymous"></script>
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: মোঃ শাহরিয়ার হোসাইন
freelancerzone