বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ১২:১৫ পূর্বাহ্ন

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের তিন বছর পূর্ণ হলো আজ

বিশেষ প্রতিবেদক :
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২৫ আগস্ট, ২০২০

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের তিন বছর পূর্ণ হলো আজ। এখনো তারা ফিরতে পারেনি নিজ জন্মভূমিতে। বাংলাদেশের অভিযোগ, রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে আন্তরিক নয় মিয়ানমার। করোনা পরিস্থিতি ও তাদের জাতীয় নির্বাচনের অজুহাতে ঝুলিয়ে রেখেছে প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন জানান, নতুন করে আরো ৬ লাখের তালিকা পাঠানো হলেও যাচাইবাছাই করা হয়েছে মাত্র ৩০ হাজার রোহিঙ্গার। কূটনীতিকদের মতে, মিয়ানমারের ওপর চীন-ভারতের চাপ আরো বাড়ালে সমস্যা দ্রুত সমাধান হতে পারে।

আশ্বাস আর প্রক্রিয়া শুরুর বেড়াজালে থমকে আছে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন। আশ্রয় নেয়ার পরের বছরে অগ্রগতিতে ছিলো ঢাকা-নেপিদো চুক্তি। দ্বিতীয় বছরে এসে দ্বিপাক্ষিক প্রচেষ্টা শেষে বেইজিংয়ের উদ্যোগে ত্রিদেশীয় চেষ্টা শুরু হয়। বাংলাদেশ-মিয়ানমার কয়েক দফা বৈঠকেও বসে। তারপর শুরু হয় রোহিঙ্গাদের তালিকা আদান-প্রদান।

ঘোষণা দিয়ে প্রত্যাবাসনের জন্য কয়েকবার তারিখ নির্ধারণ হলে নিরাপত্তার ঝুঁকিতে খোদ রোহিঙ্গারাই নিজ দেশে ফিরে যেতে রাজি হননি। আর এদিকে রোহিঙ্গাদের নিরুসাহিত করতে রাখাইন রাজ্যে প্রায়ই অস্থিরতা তৈরি করে রাখছে খোদ মিয়ানমারই। রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারে আন্তরিকতার ঘাটতির অভিযোগ বার বার বিশ্ব দরবারে জানিয়ে আসছে বাংলাদেশ।

এদিকে নতুন-পুরনো ১১ লাখ রোহিঙ্গার জনগোষ্ঠীতের প্রতিদিনই কলেবরে বাড়ছে নতুন সদস্য সংখ্যা। আন্তর্জাতিক সংস্থার জরিপ বলছে, কক্সবাজারের আশ্রয় শিবিরে প্রতিদিনই গড়ে জন্ম নিচ্ছে ৬০ থেকে ৭০ নবজাতক। অন্যদিকে নির্যাতনের মুখে এখনো মিয়ানমারের বিভিন্ন রাজ্য থেকে পালিয়ে আসছে রোহিঙ্গারা।

নিরাপত্তা বিশ্লেষক ও কূটনীতিকরা বলছেন, এ সমস্যা যত দীর্ঘায়িত হবে ততই আঞ্চলিক নিরাপত্তা হুমকিতে পড়বে।

২০১৭ সালের ২৫ আগস্ট থেকে মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর হত্যা ও নিপীড়নের মুখে সেখান থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া লাখ লাখ রোহিঙ্গা।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

Leave a Reply

More News Of This Category
<script async src="https://pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js?client=ca-pub-3423136311593782"
     crossorigin="anonymous"></script>
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: মোঃ শাহরিয়ার হোসাইন
freelancerzone