সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০৬:২৪ পূর্বাহ্ন

সুনামগঞ্জে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে নারীসহ আহত অর্ধশতাধিক: আটক ২২

মোজাম্মেল আলম ভূঁইয়া, সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৬ নভেম্বর, ২০২১
  • ১১ বার পঠিত

সুনামগঞ্জে দ্বিতীয় দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতা শুধু বেড়েই চলেছে। আজ সোমবার (১৫ নভেম্বর) সকাল ১০টায় জেলার ছাতক উপজেলার উত্তর খুরমা ইউনিয়নের আমেরতল গ্রাম দু’গ্রুপের সংঘর্ষে পরিণত হয় রণক্ষেত্রে। দুপুর পর্যন্ত দফায় দফায় চলে সংঘর্ষ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনায়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ১৫ রাউন্ড গুলি ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এঘটনার প্রেক্ষিতে অভিযান চালিয়ে দুই পক্ষের ২২জনকে আটক করাসহ এলাকার পরিবেশ নিয়ন্ত্রণে রাখতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পলিশ মোতায়ন করা হয়েছে।

প্রায় ৩ঘন্টাব্যাপী কয়েক দফা সংঘর্ষে পারভিন আক্তার (৪০), মরিয়ম বেগম (৫৫), সাহেদ আহমদ (২৪), আতিক হাসান (২৬), বদরুল মিয়া (২৫), মুক্তার মিয়া (২৩), আমির আলী (৫৫), আবুল মিয়া (৬০), রাসেল মিয়া (৩০), মারুফ আহমদ (২৫), ছুরুক মিয়া (৪৫), ছায়েদ আহমদ (২৮), লিটন মিয়া (৩২), হানিফ আলী (৫০), রজব আলী (৫৩), জালাল মিয়া (৩২), শরিয়ত আলী (৪০), আছকর আলী (৪৩), মিজান মিয়া (৩৫), রুবেল মিয়া (২৮) সহ উভয়পক্ষে অর্ধশতাধিক লোকজন আহত হয়। তাদের মধ্যে গুরুতর আহতদেরকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে- গত ১১ নভেম্বর অনুষ্টিত দ্বিতীয় দফা নির্বাচনে জেলার ছাতক উপজেলার উত্তর খুরমা ইউনিয় পরিষদের চেয়ারম্যান পদে নৌকা প্রতীক নিয়ে বর্তমান চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন ৩য় বারের মতো নির্বাচিত হন। তার সাথে প্রতিদ্বন্ধিতা করে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এডভোকেট মনির উদ্দিন। তারা দুজন সম্পর্কে চাচাতো ভাই।

তাদের বিষয় নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অনেকেই নানান মন্তব্য করে তা পোষ্ট করেছে। গতকাল রবিবার (১৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় সেই লেখা নিয়ে এডভোকেট মনির উদ্দিনের ভাতিজা রুবেল আহমদ ও চেয়ারম্যান বিল্লাল আহমেদের ভাগিনা আব্দুল আলিমের মধ্যে কথা কাটাকাটির নিয়ে হাতাহাতি হয়।

এঘটনাকে কেন্দ্র করে আজ সোমবার (১৫ নভেম্বর) সকালে দুই গ্রুপের লোকজন ডাকাডাকি করে দেশীয় অস্ত্র সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষের খবর পেয়ে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার বিল্লাল হোসেন ও ছাতক থানার ওমি মিজানুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিনি নিয়ন্ত্রণে আনেন। এবং অভিযান চালিয়ে ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে উত্তর খুরমা ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড সদস্য কয়ছর আহমদসহ ২২জনকে আটক করা হয়।

এঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সুনামগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়ান রয়েছে। এব্যাপারে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Surfe.be - Banner advertising service




নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

<a href=”https://surfe.be/ext/446180″ target=”_blank”><img src=”https://static.surfe.be/images/banners/en/240x400_1.gif” alt=”Surfe.be – Banner advertising service”></a>

via Imgflip

Surfe.be - Banner advertising service

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি  © All rights reserved © 2011 Gnewsbd24
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazargewsbd451