রবিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২২, ০৫:০৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম :

মৌসুমী হামিদকে সন্দেহ করার মাশুল দিলো

বিনোদন ডেস্ক ঃ
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২১
  • ৩৪ বার পঠিত

দৈনিক পত্রিকার একটি নিউজ—‘খালাতো ভাইয়ের সাথে পরক্রিয়ায় জড়িয়ে স্বামীকে বিষপানে হত্যা করেছে এক স্ত্রী’ এই নিউজ অফিস সহকারীর মুখে শুনে বাসার দিকে দৌড়াবে মামুন। অফিসের কথায় ভুলে যায় মামুন। বাসার দরজায় একের পর এক কলিং বেল বাজাবে। দরজা খুলবে মামুনের নয়া বিয়ে করা স্ত্রী আফরিন।

স্ত্রীর দিকে সন্দেহ দৃর্ষ্টিতে তাঁকিয়ে মাথার চুল, বিছানার চাদর, ঘরের আসবাবপত্র, স্ত্রীর ব্যবহৃত পোশাক-পরিচ্ছেদ ঠিক আছে কিনা সব গভীর ভাবে পরীক্ষা করবে।্ গেস্ট রুমে খালাতো ভাই আছে কিনা চেক করবে। আফরিন প্রচ- সুন্দরি। সুন্দর রুপ দেখেই অনেক তপস্যা করে বিয়ে করেছিলো। বিয়ে করার কয় মাস যেতেই স্ত্রীকে চরম সন্দেহ করতে থাকে। শুরু হয় দাম্পত্য কলহ!

মামুনের রাতে স্ত্রীর পায়ে রশ্নি বেঁধে ঘুমায়। আফরিন ঘুম থেকে ওঠে তার পায়ে রশ্নি দেখে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। এভাবেই একের পর এক সন্দেহ ভুল প্রমাণিত হলেও মামুন আফরিনকে স্বাভাবিক ভাবে বিশ^াস করতেই পারছে না। আফরিন মামুনের মেন্টাল আচারণে বিরক্ত হয়ে পড়ে। খালাতো ভাইকে বাসা থেকে বের করে দেয় মামুন। এতে আফরিন প্রচ- ক্ষুদ্ধ হয়।

আফরিন ও মামুনের সম্পর্ক ভেঙ্গে যাওয়ার উপক্রম হয়! আফরিন মামুনকে ডিভোর্স দিবেই দিবে। কিন্তু তার বান্ধবীর কথায় মামুনকে একটি মেন্টাল ডাক্তার দেখানোর পরামর্শ দেয়। অবশেষে মামুনকে মেন্টাল ডাক্তার দেখানোর পর বুঝা যায় মামুনের মস্তিস্কে একটি সমস্যা আছে, কোনো নেগেটিভ চিন্তা কিছুতেই ভুলতে পারে না! এর কারণ, মামুনের বয়স যখন ১০ বছর ছিলো; মামুনের মা খালাতো ভাইয়ের সাথে মামুনকে ফেলে পালিয়ে বিয়ে করেছিলো, ডাক্তার এ তথ্য উদ্ধার করে।

মামুন অবশেষে সুস্থ হয়ে নিজের সন্দেহ করার মূদ্রাদোষ ত্যাগ করে। তবুও আফরিন ক্ষমা করে না। শুধুমাত্র সন্দেহ’র জন্য একটি সুখী সংসার হুমকির মধ্যে পড়ে। আফরিন ও মামুনের করুণ পরিণতি জানতে হলে দেখতে হবে কবি ও নির্মাতা জহির খান পরিচালিত মিঃ মেন্টালম্যান টেলিফিল্মটি। নির্মাতা জহির খান বলেন, ‘আমি সব সময় যাপিত জীবনের দুঃখ-কষ্ট ও প্রেম-ভালোবাসার মাধ্যমে সমাজে মেসেজ দেবার চেষ্টা করে থাকি। এর ধারাবাহিকতায় মিজানুর রহমান বেলাল’র রচনায় সুন্দর একটি গল্প-এ কাজ করলাম। সবাই ভালো অভিনয় করেছে। আশা রাখি দর্শক নতুন কিছু পেতে যাচ্ছে।’

মিঃ মেন্টালম্যান রচনা করেছেন সময়ের ব্যস্ত কবি নাট্যকার-মিজানুর রহমান বেলাল। মামুন চরিত্রে ইরফান সাজ্জাত আর আফরিন চরিত্রে মৌসুমী হামিদ, ডাঃ চরিত্রে আব্দুল্লাহ রানা, অফিস সহকারী মুকিব জাকারিয়া, নূর মোহাম্মদ ও অন্যান্য চরিত্রে রকি খান, নয়ন, নীহারিকা মৌ, আহমেদ জিসান, হামিদুল ইসলাম ও এ্যানিকে দেখা যাবে মিঃ মেন্টালম্যান টেলিছবিতে। চিত্রগ্রাহক হিসেবে ছিলেন, আরমান হোসাইন। মিঃ মেন্টালম্যান শীঘ্রই একটি বেসরকারী টিভি চ্যানেলে প্রচার হবে বলে পরিচালক জানান।

 

Surfe.be - Banner advertising service




নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

<a href=”https://surfe.be/ext/446180″ target=”_blank”><img src=”https://static.surfe.be/images/banners/en/240x400_1.gif” alt=”Surfe.be – Banner advertising service”></a>

via Imgflip

Surfe.be - Banner advertising service

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি  © All rights reserved © 2011 Gnewsbd24
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazargewsbd451