রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১:৪৬ পূর্বাহ্ন

ট্রাম্পের বাড়িতে এফবিআইয়ের আকস্মিক অভিযান

জি-নিউজবিডি২৪ ডেস্ক ঃ
  • Update Time : মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট, ২০২২

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বাড়িতে আকস্মিক অভিযান চালিয়েছে দেশটির কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা ফেডারেল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (এফবিআই)।

সোমবার (৮ আগস্ট) ফ্লোরিডার পাম বিচ শহরের মার-এ-লাগোতে এই অভিযান চালায় সংস্থাটি। এর আগে যুক্তরাষ্ট্রে সাবেক কোনো প্রেসিডেন্টের বাড়িতে এমনভাবে এফবিআইকে অভিযান করতে দেখা যায়নি। এককথায় এই ঘটনা অভূতপূর্ব।

গণমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, এফবিআইয়ের এই অভিযানের সঙ্গে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে সরকারি গোপন নথি সরানোর অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগের তদন্তের যোগসূত্র থাকতে পারে। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে বর্তমানে যেসব তদন্ত চলছে, তার মধ্যে এটি অন্যতম।

যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ অবশ্য এই অভিযানের বিষয়ে মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। এছাড়া ওয়াশিংটনে এফবিআই’র সদর দপ্তর এবং মিয়ামিতে অবস্থিত সংস্থাটির ফিল্ড অফিসও ট্রাম্পের বাড়িতে অভিযানের বিষয়ে মন্তব্য করতে অস্বীকার করেছে।

তবে ট্রাম্পের অভিযোগ, বিপুল সংখ্যক এফবিআই এজেন্ট তার বাড়িতে অভিযান চালাতে গিয়েছিলেন। মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) একথা নিজেই জানিয়েছেন ট্রাম্প।

তবে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চলমান তদন্ত সম্পর্কে জানেন এমন দুই অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে উদ্ধৃত করে নিউইয়র্ক টাইমস জানিয়েছে, প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন শেষে ট্রাম্প নিজের সঙ্গে করে হোয়াইট হাউস থেকে ফ্লোরিডার এই রিসোর্টে নিয়ে আসা কয়েক বাক্স নথির খোঁজ পেতেই এই তল্লাশি চালানো হয়েছে।

এফবিআইয়ের অভিযান শুরুর পর ট্রাম্প বলেন, “সংশ্লিষ্ট সরকারি সংস্থাগুলোর সঙ্গে কাজ করার এবং সহযোগিতা করার পরও আমার বাড়িতে এই অঘোষিত অভিযান চালানোর কোনো প্রয়োজনীয়তা ছিল না। তারা এমনকি কোনো অনুমতি না নিয়েই আমার বাড়িতে প্রবেশ করেছে!”

এ প্রসঙ্গে সিএনএন জানিয়েছে, এফবিআইয়ের অভিযানের সময় ট্রাম্প তার এই বাড়িতে ছিলেন না। তবে এফবিআই সেখানে প্রবেশের জন্য একটি সার্চ ওয়ারেন্ট নিয়েছিল। এছাড়া অজ্ঞাত দু’টি সূত্রের বরাত দিয়ে সিএনএন আরও বলছে, গোপন নথি খুঁজে পেতেই এই অভিযান চালানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট পদে মেয়াদ শেষের পর হোয়াইট হাউস ছেড়ে ২০২১ সালের জানুয়ারি মাস থেকে ডোনাল্ড ট্রাম্প ফ্লোরিডার পাম বিচ দ্বীপের মার-এ-লাগো ভবনটিকে স্থায়ী আবাস হিসেবে ব্যবহার করছেন।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

More News Of This Category
<script async src="https://pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js?client=ca-pub-3423136311593782"
     crossorigin="anonymous"></script>
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: মোঃ শাহরিয়ার হোসাইন
freelancerzone