মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৩:১২ পূর্বাহ্ন

ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশ

জি-নিউজবিডি২৪ ডেস্ক ঃ
  • Update Time : বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২২

গতকাল মঙ্গলবার প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে অনুষ্ঠিত ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশ (আইবিএফবি) এর বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হয়েছে, যেখানে অংশগ্রহণকারীরা বৈশ্বিক বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করার মাধ্যমে আরও কর্মসংস্থান সৃষ্টির জন্য ব্যবসায়িক পরিবেশের আরও উন্নতির উপর জোর দেন।

এজিএমের উদ্বোধনী অধিবেশনে তারা নীতিনির্ধারকদের প্রয়োজনীয় পরিবর্তন আনতে এবং সফল আরএমজি (রেডিমেড গার্মেন্টস) মডেলের প্রতিলিপি বাস্তবায়নের জন্য অন্যান্য রপ্তানিমুখী খাতে তাদের যথেষ্ট প্রতিযোগিতামূলক করার আহ্বান জানান।

যেখানে প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথি হিসেবে যথাক্রমে যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাস এবং বাংলাদেশে ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত ও প্রতিনিধিদলের প্রধান চার্লস হোয়াইটলি উপস্থিত ছিলেন।

মিঃ হাস তার বক্তৃতায় বলেন, যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশকে তার ব্যবসায়িক পরিবেশ উন্নত করতে সাহায্য করতে চায় যাতে এটি আরও বেশি আন্তর্জাতিক বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করতে পারে।

তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক বিনিয়োগকারীদের স্বাগত জানাতে বাংলাদেশকে প্রস্তুত থাকতে হবে।

বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তোলার পাশাপাশি, তিনি লজিস্টিকসে আরও বেশি মনোযোগ দেওয়ার পরামর্শ দেন, ইউটিলিটিগুলির নিরবচ্ছিন্ন সরবরাহ নিশ্চিত করা, বিনিয়োগকারীদের জন্য উপযুক্ত হবে এমনভাবে আইনি কাঠামো তৈরি করা।

বছরের পর বছর ধরে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতির প্রশংসা করে, এখানে ইইউর প্রতিনিধি দলের প্রধান চার্লস হোয়াইটলি বলেন, দেশটিকে স্থানীয় ও বিদেশী উভয় বিনিয়োগকারীদের জন্য সমান সমান খেলার ক্ষেত্র নিশ্চিত করতে কাজ করতে হবে।

তিনি বলেন, স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উত্তরণের জন্য ইইউ বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করতে চায়।

অর্থনীতির টেকসই প্রবৃদ্ধির জন্য রপ্তানি বহুমুখীকরণের চাবিকাঠি উল্লেখ করে পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (পিআরআই) চেয়ারম্যান ডঃ জাইদি সাত্তার বলেন, বাংলাদেশের সফল আরএমজি মডেলকে অন্যান্য নন-আরএমজি সেক্টরে প্রতিলিপি করতে হবে।তিনি শুল্ক কাঠামো যৌক্তিক করারও পরামর্শ দেন।

স্বাগত বক্তব্যে আইবিএফবি সভাপতি হুমায়ুন রশীদ বলেন, আইবিএফবি একটি অলাভজনক, অরাজনৈতিক এবং নির্দলীয়প্ল্যাটফর্ম যা জ্ঞানভিত্তিক ব্যক্তিসহ সারা দেশের ব্যবসায়ী নেতাদের সমন্বয়ে গঠিত।

উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি বলেন, উন্নয়নশীল অর্থনীতিতে বেসরকারি খাতকে অর্থনৈতিক উন্নয়নের ইঞ্জিন হিসেবে বিবেচনা করা হয়। প্রতিকূলতা সত্ত্বেও 8 শতাংশের উপরে প্রবৃদ্ধি অর্জনের জন্য আইবিএফবিজ্বালানি ও যোগাযোগ খাতে বিনিয়োগের প্রশংসা করে। গত বছরের এফডিআই বৃদ্ধি বিদেশী বিনিয়োগকারীদের আস্থা প্রমাণ করেছে।

তিনি বলেন, দেশে ব্যবসা-বান্ধব পরিবেশ তৈরির জন্য কঠোর পরিশ্রম করা হচ্ছে।

আইবিএফবির সহ-সভাপতি এম.এস. সিদ্দিকী ও আইবিএফবির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী অধিবেশনে বক্তব্য রাখেন।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

More News Of This Category
<script async src="https://pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js?client=ca-pub-3423136311593782"
     crossorigin="anonymous"></script>
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: মোঃ শাহরিয়ার হোসাইন
freelancerzone