বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন

তানোরে ফিল্মি-স্টাইলে সেচ মটর জবরদখল

আব্দুস সবুর তানোর(রাজশাহ)প্রতিনিধিঃ
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০২২

রাজশাহীর তানোরে জমিসহ সেচ পাম্প মটর বিক্রির পর ফের ফিল্মি স্টাইলে জবর দখল করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার  তালন্দ ইউপির আড়াদিঘি গ্রামে এই ঘটনা ঘটেছে।এঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

স্থানীয়রা জানান, উপজেলার তালন্দ ইউপির জেল নম্বর ১৪৯ আড়াদিঘি মৌজার, আরএস খতিয়ান নম্বর

১২৬ ও দাগ নম্বর ৬১, জমির পরিমাণ ৫ শতাংশ শ্রেণী ধানি। আড়াদীঘি গ্রামের আব্দুস সোবহানের পুত্র আইনুল হক ওই জমিতে (সেচ পাম্প) মটর স্থাপন করেছেন। কিন্ত্ত আইনুল গুরুত্বর অসুস্থ হয়ে পড়লে তার উন্নত চিকিৎসার জন্য জমিসহ সেচ মটরটি বিক্রি করে দেয়া হয়। আড়াদিঘি গ্রামের মৃত আয়ুব আলীর পুত্র শাফিউল ইসলাম ৫ লাখ টাকায় জমিসহ সেচ মটর রেজিষ্ট্রি দলিলের মাধ্যমে ক্রয় করে শান্তিপূর্ণভাবে ভোগদখল শুরু করেন। বিগত ২০২১ সালের ২৩ মার্চ চিকিৎসাধীন অবস্থায় আইনুল হকের মৃত্যু হয়। কিন্ত্ত আইনুলের মৃত্যুর পর তার স্বজনেরা জাল দলিল দাবি করে আদালতে মামলা ও সেচ মটর জোরপুর্বক দখলে নিতে মরিয়া হয়ে উঠে। এখন প্রশ্ন হলো দলিল জাল হলে সেটা আদালতের বিষয় এখানে তারা পেশী শক্তি প্রদর্শন করে সেচ মটরের দখল নিতে পারেন না। একাধিক গ্রামবাসি বলেন, শাফিউল ইসলাম তার শশুরের কাছে থেকে টাকা নিয়ে ওই সেচ মটর কিনেছেন এটা সত্যি কথা এবং গ্রামের সবাই ঘটনা জানেন।

এদিকে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গত ৪ ডিসেম্বর প্রয়াত আইনুলের ভাই মাইনুল ইসলাম বহিরাগত ভাড়াটিয়া বাহিনী নিয়ে চাইনিজ কুড়াল ও চাপাতিসহ দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ফিল্মি-স্টাইলে হামলা করে সেচ মটর জবরদখল করেছে। তাদের হামলায় শাফিউল ইসলাম  ও তার পুত্র এহেসান আলী (১৮) আহত হয়। তবে এহেসানের অবস্থা গুরুত্বর হওয়ায় সে উপজেলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এবিষয়ে প্রয়াত আইনুল হকের স্ত্রী রশিদা বেওয়া জানান, তার স্বামী সেচপাম্পটি নির্ধারিত সময়ের জন্য ৫ লাখ টাকায় শাফিউলের কাছে বন্ধক দিয়েছিলেন। তিনি বলেন, তার স্বামীর মৃত্যুর পর বন্ধকের টাকা চাইলে উক্ত টাকার বিনিময়ে  রুপালী ব্যাংক তানোর শাখার একটি ৫ লাখ টাকার চেক দেন শাফিউল ইসলাম, তবে সেই অ্যাকাউন্টে টাকা না থাকায় পুনরায় তার কাছে টাকা  চাইলে, সে বলে তার স্বামীর সেচপাম্প ( মটর) তিনি  ক্রয় করে নিয়েছেন। এবিষয়ে শাফিউল ইসলাম বলেন, আইনুল হকের কাছে থেকে  তিনি বৈধভাবে সেচপাম্পসহ জমি ক্রয় ও শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোগদখল করছেন। কিন্ত্ত গত রোববার আইনুলের ভাই মাইনুল  বহিরাগত ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীদের নিয়ে তার লোকজনকে মারপিট করে সেচপাম্প জবরদখল করেছে। এবিষয়ে মাইনুল ইসলাম বলেন, জাল দলিল করে শাফিউল সেচ মটর নিজের বলে দখলে রেখে ছিলো, তারা তার কাছে থেকে দখল বুঝে নিয়েছেন, এর বাইরে অন্য কোনো ঘটনা ঘটেনি।

তালন্দ ইউপি সদস্য আড়াদিঘি গ্রামের বাসিন্দা শামসুদ্দিন জানান, গত বুধবারে থানায় বসার কথা ছিল কিন্তু কেউ আসেনি।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

More News Of This Category
<script async src="https://pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js?client=ca-pub-3423136311593782"
     crossorigin="anonymous"></script>
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: মোঃ শাহরিয়ার হোসাইন
freelancerzone