বৃহস্পতিবার, ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৩:০৩ পূর্বাহ্ন

পীরগঞ্জে সাংবাদিকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার স্বাক্ষী সাংবাদিক

জসীমউদ্দীন ইতি, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ঃ
  • Update Time : সোমবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০২৩

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ও যুগ্ম সম্পাদক সহ চার সাংবাদিক নামে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে আর ঐ মামলায় স্বাক্ষী হিসেবে নাম রয়েছে একই সংগঠনের সভাপতি সহ দুই সাংবাদিকের। রবিবার বিষয়টি জানার পর এ ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন জেলার মুল ধারার সাংবাদিকরা।

পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু তারেক বাধন জানান, লিখিত অভিযোগ ও মামলার সুত্র ধরে গত বছরের ১৫ এপ্রিল খোলা বার্তা টোয়েন্টিফোর ডটকম এবং ১৬ এপ্রিল দৈনিক ভোরের ডাক, নয়া শতাব্দি, প্রতিদিনের সংবাদ, রংপুর সংবাদ সহ কয়েকটি অনলাইন মাধ্যমে “পাহাড়াদারের হাত পা বেধে পুকুরের ৪৫ মণ মাছ নিধন” শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়। এ ঘটনার ৮ মাস পর সামাজিক মর্যাদা ক্ষুন্ন হওয়ার অভিযোগ এনে উপজেলার সিংগারোল গ্রামের খায়রুল আলম নামে এক অবসর প্রাপ্ত কলেজ শিক্ষক পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু তারেক বাধন(দৈনিক গন মানুষের আওয়াজ), যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ফাইদুল ইসলাম(দৈনিক প্রতিদিনের সংবাদ), সাংবাদিক বিষ্ণুপদ রায় (দৈনিক আমাদের সময়) ও সাংবাদিক আব্দুল আলিমের (দৈনিক আমার সংবাদ) নামে গত ১৮ জানুয়ারী রংপুর সাইবার ট্রাইব্যুনালে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করেন। মামলায় আরো ৫ জন সাধারণ লোককে আসামী করা হয়েছে। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ২০১৮ এর ২৫ ও ২৯ ধারায় দায়ের করা এ মামলাটি তদন্ত করার জন্য পীরগঞ্জ থানার পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

মামলার কাগজ পত্র পর্যালোচনা করে দেখা যায়, মামলায় স্বাক্ষী হিসেবে ৪ নম্বরে নাম রয়েছে পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি জাকির হোসেনের এবং ৫ নম্বরে সকালের সময় পত্রিকার মাহাবুবুর রহমান বুলুর। এতে হতবাক হয়েছেন মুলধারার সাংবাদিকরারা। নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন তারা।

এ বিষয়ে পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বাদল হোসেন জানান, অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সদস্যদের নিজ কব্জায় রাখতে সভাপতি জাকির হোসেন পরিকল্পিত ভাবে মামলাটি করিয়েছেন। এতে সংগঠনে বিশৃংখলা সৃষ্টি হবে।

পীরগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি জয়নাল আবেদিন বাবুল বলেন, সাংবাদিকের বড় শত্রু সাংবাদিকরাই। তবে যারা সাংবাদিকদের অহেতুক হয়রানি করার জন্য নেপথ্যে কাজ করেন তাদের সংগঠন থেকে বহিস্কার করা উচিৎ।

ঠাকুরগাও অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আব্দুল আওয়াল বলেন, সাংবাদিকের সংগঠনের সভাপতি হয়ে সংগঠনের সেক্রেটারী ও জয়েন্ট সেক্রেটারীর বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে মামলার স্বাক্ষী হওয়া সংগঠনের শৃংখলা বিরোধী। এ বিষয়ে অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ঠাকুরগাও প্রেসক্লাবের সভাপতি মনসুর আলী বলেন, এমনটা হলে, এটা সবার জন্য দুঃখ জনক। সাংবাদিকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়েরের ঘটনায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।

এ বিষয়ে পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি জাকির হোসেন বলেন, সাংবাদিকদের বাাঁচানোর জন্য স্বাক্ষী হয়েছি।

Surfe.be - Banner advertising service

https://www.facebook.com/gnewsbd24

More News Of This Category
© All rights reserved © 2011 Live Media
কারিগরি সহযোগিতায়: The It Zone
freelancerzone